২৮ সেপ্টেম্বর শুরু হচ্ছে ট্যুরিজম ফেয়ার

নিজস্ব প্রতিবেদক: বিশ্ব পর্যটন দিবস পালিত হবে ২৭ সেপ্টেম্বর। এ উপলক্ষে বিগত বছরের ধারাবাহিকতায় অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে এশিয়ান ট্যুরিজম ফেয়ার। পর্যটন শিল্প বিকাশ এবং পর্যটন বিষয়ক সব তথ্য একই ছাদের নিচে দেয়ার লক্ষে আয়োজিত হতে যাচ্ছে এ মেলা।

চলতি মাসের ২৮, ২৯ ও ৩০ তারিখে রাজধানীর বসুন্ধরার ইন্টারন্যাশনাল কনভেনশন সেন্টারে অনুষ্ঠিত হবে ‘সপ্তম এশিয়ান ট্যুরিজম ফেয়ার-২০১৮’। প্রতিদিন সকাল ১০টা থেকে রাত আটটা পর্যন্ত এই মেলা চলবে।

এবার নিয়ে সপ্তমবারের মতো হচ্ছে ‘এশিয়ান ট্যুরিজম ফেয়ার’। মেলার আয়োজন করছে পর্যটন বিচিত্রা। আর এতে সহযোগিতা করছে বাংলাদেশ ট্যুরিজম বোর্ড (বিটিবি) ও বাংলাদেশ পর্যটন করপোরেশন (বিপিসি)।

এশিয়ান ট্যুরিজম ফেয়ারের আহ্বায়ক ও পর্যটন বিচিত্রা সম্পাদক মহিউদ্দিন হেলাল ঢাকাটাইমসকে বলেন, ২৭ সেপ্টেম্বর বিশ্ব পর্যটন দিবসের সঙ্গে সমন্বয় রেখেই সপ্তমবারের মতো অনুষ্ঠিত হচ্ছে ‘এশিয়ান টুরিজম ফেয়ার’। এখানে বাংলাদেশসহ বিশ্বের বিভিন্ন বড় বড় পর্যটন বিষয়ক প্রতিষ্ঠান অংশ নেবে।

মহিউদ্দিন হেলাল বলেন, একজন পর্যটককে যত ধরনের সুবিধা দেয়া যায় এর ব্যবস্থা করা হবে মেলায়। এবারের মেলায় ১২০টি স্টলে অংশগ্রহণ করবে বাংলাদেশসহ ভারত, নেপাল, চীন, ইন্দোনেশিয়া, ফিলিপাইন, সিঙ্গাপুরের বিভিন্ন পর্যটন সংস্থা। আসন্ন পর্যটন মৌসুমে দেশ ও বিদেশে বেড়ানোর বিভিন্ন আকর্ষণীয় ভ্রমণ অফার, হোটেল, রিসোর্ট বা প্যাকেজ  বুকিংসহ বিশেষ ছাড়ের ব্যবস্থা। মেলায় অংশগ্রহণকারী প্রতিষ্ঠানগুলোর মধ্যে রয়েছে হোটেল, মোটেল, রিসোর্ট, ট্যুর অপারেটর, ট্রাভেল শপ, থিমপার্কসহ বিনোদনের আরো অনেক প্রতিষ্ঠান।

মেলায় বাংলাদেশসহ অন্যান্য দেশের আকর্ষণীয় ও দর্শনীয় স্থানসমূহে আকর্ষণীয় ভ্রমণ অফার, হোটেল বা প্যাকেজ বুকিংয়ের ক্ষেত্রে বিশেষ ছাড়ের ব্যবস্থা থাকছে জানিয়ে এশিয়ান ট্যুরিজম ফেয়ারের আহ্বায়ক বলেন, আগামীকাল (২৬ সেপ্টেম্বর) জাতীয় প্রেসক্লাবের ভিআইপি লাউঞ্জে সংবাদ সম্মেলনে মেলার সম্পর্কে বিস্তারিত তুলে ধরা হবে।

মহিউদ্দিন হেলাল বলেন, এবারের মেলায় বৈচিত্র্যময় আয়োজন থাকবে। বাংলাদেশ পর্যটন করপোরেশন ও বাংলাদেশ মালয়েশিয়া চেম্বার অব কমার্সের আয়োজনে পর্যটন বিষয়ক সেমিনার, শিশুদের জন্য চিত্রাংকন প্রতিযোগিতা থাকবে। টেকসই পর্যটন বিষয়ে আলোচনার পাশাপাশি থাকবে বিজনেস টু বিজনেস মিটিং। মেলার প্রথম ও দ্বিতীয় দিন বিকালে রয়েছে বাংলাদেশ, ফিলিপাইন্স ও ইন্দোনেশিয়ার পর্যটন বিষয়ক প্রেজেন্টেশন ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান। এই মেলার মাধ্যমে পর্যটন শিল্পের একটি পূর্ণাঙ্গ চিত্র দর্শনার্থীদের মাঝে তুলে ধরার প্রচেষ্টা থাকবে। আমরা এ বিষয়য়ে বিস্তারিত সংবাদ সম্মেলনে জানাবো।

মেলায় প্রবেশমূল্য ২০ টাকা ধরা হয়েছে জানিয়ে মহিউদ্দিন হেলাল বলেন, মেলার ক্রজ পার্টনার ‘ঢাকা ডিনার ক্রজ’। এখানে www.dhakadinnercruise.com/atf-entryticket অনলাইনে রেজিস্ট্রেশন করলেই ‘ঢাকা ডিনার ক্রুজের’ সৌজন্যে ইমেইলে পাওয়া যাবে মেলায় প্রবেশের ফ্রি টিকেট। আমরা প্রতিটি টিকিটেই র‌্যাফেল ড্র রেখেছি। যেখানে থাকছে আকর্ষণীয় পুরস্কার।

খবরটি পড়া হয়েছে :25বার!

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *